০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, সোমবার, ১২:২৬:১০ অপরাহ্ন


গ্যাসের দাম পুনর্নির্ধারণের ইঙ্গিত বাণিজ্যমন্ত্রীর
অনলাইন ডেস্ক
  • আপডেট করা হয়েছে : ২০-০১-২০২৩
গ্যাসের দাম পুনর্নির্ধারণের ইঙ্গিত বাণিজ্যমন্ত্রীর ফাইল ফটো


শিল্পখাতে গ্যাসের দাম পুনর্নির্ধারণের ইঙ্গিত দিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। তিনি বলেছেন, বিষয়টি নিয়ে শিগগিরই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে বসবেন ব্যবসায়ীরা। এরপরই আসতে পারে নতুন সিদ্ধান্ত।

শুক্রবার (২০ জানুয়ারি) রাজধানীর একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত কটন সামিটের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন বাণিজ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) শর্ত নয়, ব্যবসায়ীদের চাওয়ার পরিপ্রেক্ষিতেই গ্যাসের নতুন দাম নির্ধারণ করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ব্যবসায়ীদের বৈঠক হবে। এর পরেই নতুন সিদ্ধান্ত আসতে পারে।

তবে ব্যবসায়ীরা কেনা দামে নিতে চেয়েছেন বলেই গ্যাসের দাম বাড়ানো হয়েছে বলে দাবি করেন টিপু মুনশি।

অনুষ্ঠানে গ্যাস ও বিদ্যুতের পাশাপাশি তুলা আমদানিতে বাড়তি খরচ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন ব্যবসায়ীরা।

বাংলাদেশ টেক্সটাইল মিলস অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মোহাম্মদ আলী খোকন বলেন, দেশে বছরে ৯০ লাখ বেল তুলার প্রয়োজন হয়। বিপরীতে মাত্র দেড় লাখ বেল তুলা উৎপাদন করে বাংলাদেশ। চাহিদা মেটাতে যুক্তরাষ্ট্র, অস্ট্রেলিয়া, ভারত ও পাকিস্তানসহ বিভিন্ন দেশ থেকে তুলা আমদানি করতে হয়।

এক কেজি তুলা উৎপাদন করলে ৩ ডলার সাশ্রয় হয় উল্লেখ করে এক ব্যবসায়ী বলেন, ২০ থেকে ২২ হাজার হেক্টর জমিতে তুলা চাষ হচ্ছে। বিপরীতে লক্ষাধিক হেক্টর জমিতে তামাক চাষ হচ্ছে। এ সময় তামাকের পরিবর্তে তুলা চাষের আহ্বান জানান ব্যবসায়ীরা।

বাংলাদেশ পোশাক প্রস্তুতকারক ও রফতানিকারক সমিতির (বিজিএমইএ) সভাপতি ফারুক হাসান বলেন, চিনিকলগুলোর জমিতে তুলা চাষ করা গেলে চাহিদার ২৫ ভাগ তুলা দেশেই উৎপাদন করা সম্ভব।

তিনি আরও বলেন, ২ শতাংশ তুলা দেশেই উৎপাদন হয়। বাকি ৯৮ শতাংশ সুতা আমদানি করতে হয়।

তাই তামাক চাষিদের প্রণোদনা দিয়ে তুলা চাষে উদ্ধুধ করার পরামর্শ দেন বিজিএমইএ সভাপতি।

এ পরিপ্রেক্ষিতে দেশের বাইরে তুলা উৎপাদনের জন্য কম্বোডিয়াসহ বেশ কয়েকটি দেশে বিনিয়োগের পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী।

সম্প্রতি নিজস্ব উৎস ও অতি উচ্চমূল্যে আমদানি করা তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) দিয়ে নিরবচ্ছিন্ন গ্যাস সরবরাহ করতে শিল্পখাতে প্রতি ইউনিট গ্যাসের দাম ১১ টাকা ৯৮ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৩০ টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার, যা আগামী মাস থেকে কার্যকর হবে।

হঠাৎ করে এক লাফে প্রতি ইউনিটে ১৮ টাকা দাম বাড়ানো নিয়ে আপত্তি তোলেন ব্যবসায়ীরা।