২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, সোমবার, ১১:০৩:৩৫ পূর্বাহ্ন


চোখে 'অঞ্জনি' হলে দ্রুত সারাতে যা করনিয়! দেখেনিন একঝলকে
ফারহানা জেরিন
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৩-১২-২০২৩
চোখে 'অঞ্জনি' হলে দ্রুত সারাতে যা করনিয়! দেখেনিন একঝলকে ফাইল ফটো


অঞ্জনি বা আইলিড সিস্ট নামক চোখের সমস্যায় অনেকেই ভোগেন। চিকিত্‍সা বিজ্ঞানের ভাষায় একে বলা হয় স্টাই বা হরডিওলাম। কেন এটি হয়?

চোখে অনেক ক্ষুদ্র তেল গ্রন্থি আছে। বিশেষ করে চোখের পাতার উপর। মৃত কোষ, ময়লা, তেল জমে ওই গ্রন্থির মুখগুলো বন্ধ হয়ে যায়। গ্রন্থির ভেতরে জন্ম নেয় ব্যাকটেরিয়া।

ফলে চোখে অঞ্জনির মতো সমস্যা হয়।

অঞ্জনি তেমন কোনো বড় সমস্যা নয়, তবে দীর্ঘদিন এর সমস্যায় চোখের মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। তবে এর কারণে যে ওষুধের প্রয়োজন হয় সব সময় তা কিন্তু নয়।

নিজ থেকেই এটি সেরে যায় কয়েকদিনের মধ্যেই। অঞ্জনির কারণে চোখের যন্ত্রণা ও অস্বস্তি থেকে মুক্তি পেতে চাইলে কয়েকটি ঘরোয়া উপায় অনুসরণ করতে পারেন। এতে দ্রুত অঞ্জনির সমস্যা সারবে-

গরম সেঁক দিন: নরম কাপড় গরম করে হারখা হাতে গরম সেঁক দিন। এতে সংক্রমণের ঝুঁকি কমবে। আবার গ্রন্থির মুখে জমে থাকা তেলও শুকিয়ে যাবে। এমনকি অঞ্জনির ব্যথাও দ্রুত কমবে।

গরম টি-ব্যাগ: গরম টি-ব্যাগও ব্যবহার করতে পারেন অঞ্জনি সারাতে। এক্ষেত্রে কালো চায়ের ব্যাগ বেশি কার্যকরী। কারণ এতে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট থাকে। যা চোখের ফোলাভাব কমতেও সাহায্য করে।

ক্যাস্টর অয়েলের ব্যবহার: চুল গজাতে ক্যাস্টর অয়েল খুবই কার্যকরী এক উপাদান। এটি চোখের অঞ্জনি সারাতেও দারুন কাজ করে। এতে ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণের ঝুঁকি কমে।

পেয়ারা পাতার সেঁক: পেয়ারা পাতাও অঞ্জনি সৃষ্টিকারী ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে। এজন্য শুকনো পেয়ারা পাতা অল্প গরম করে নরম কাপড়ে জড়িয়ে চোখের পাতায় বুলিয়ে নিন। এতে মিলবে স্বস্তি। অঞ্জনির সমস্যাও দ্রুত কমবে।

চোখে অঞ্জনি হলে বিভিন্ন প্রসাধনী ব্যবহার এড়িয়ে চলুন। না হলে আক্রান্ত স্থানে ব্যাকটেরিয়া সংক্রমণ ঘটতে পারে। এসব ঘরোয়া উপায়েও যদি চোখের অঞ্জনি না কমে তাই দ্রুত চিকিত্‍সকের পরামর্শ নিতে হবে।