২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, সোমবার, ১০:২৩:৫৩ পূর্বাহ্ন


নিউ ইয়র্কে শো টাইম মিউজিকের এনআরবি অ্যাওয়ার্ডের জমজমাট আসর
ইমা এলিস/ বাংলা প্রেস, নিউ ইয়র্ক
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৫-১২-২০২৩
নিউ ইয়র্কে শো টাইম মিউজিকের এনআরবি অ্যাওয়ার্ডের জমজমাট আসর নিউ ইয়র্কে শো টাইম মিউজিকের এনআরবি অ্যাওয়ার্ডের জমজমাট আসর


যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে প্রতি বছরের ন্যায় এবারও এনআরবি অ্যাওয়ার্ড প্রদান করেছেন প্রবাসের বিনোদন সংস্থা শো টাইম মিউজিক। শিল্প, সাহিত্যে, ব্যবসা-বাণিজ্যসহ প্রতিভা বিকাশে সর্বাধিক জনপ্রিয় এনআরবি অ্যাওয়ার্ডের ১৩তম আসর বসেছিল রোববার (৩ ডিসেম্বর) নিউ ইয়র্কের কুইন্স প্যালেসের মিলনায়তনে। চলতি বছর বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের অ্যাওয়ার্ড প্রদান করা হয়। বৈরি আবহাওয়াতেও দর্শকদের উপস্থিতি ছিল যথারীতি। দেশের জনপ্রিয় অভিনেত্রী মৌসুমীর উপস্থিতি ছিলো উপস্থিত দর্শকদের বাড়তি আকর্ষন। যুক্তরাষ্ট্রের বাংলা সংবাদমাধ্যম বাংলা প্রেস এ খবর জানিয়েছে।

রাত ৮টায় উপস্থিত সবাইকে স্বাগত জানিয়ে শুভেচ্ছা বক্তৃতা করেন শো টাইম মিউজিকের সিইও আলমগীর খান আলম। তিনি বলেন, ১৩তম আসরেও আপনাদের সরব উপস্থিতি প্রমাণ করে আপনারা শো টাইম মিউজিকের এই এ্যাওয়ার্ড প্রদানকে যথার্থ মনে করেন। অর্থাৎ আমরা মানুষকে সম্মানীত করার যে প্রক্রিয়া অনুসরণ করছি সেটি সঠিক পথেই এগুচ্ছে। তিনি বলেন, সামাজিক দায়বদ্ধতার অংশ হিসাবে যে কাজটি আমরা করছি সেটি আগামীতেও অব্যাহত থাকবে।

বাবু জামান ও সোনিয়ার প্রাণবন্ত উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানের প্রধান আকর্ষণ বাংলাদেশ চলচ্চিত্রের প্রিয়দর্শিনী নায়িকা মৌসুমী বলেন, প্রবাসে থেকেও যে সকল বাবা মা তাদের সন্তানদের মাঝে দেশীয় সংস্কৃতি তথা বাংলা সংস্কৃতি ধরে রাখতে এত পরিশ্রম করছেন, তাদের প্রতি আমার বিনম্র শ্রদ্ধা। এখানে জন্ম নেওয়া শিল্পীদের পরিবেশনায় তিনি তার মুগ্ধতা প্রকাশ করেন।

বাংলাদেশি এটর্নী মঈন চৌধুরী বলেন, দিনে দিনে এনআরবি এ্যাওয়ার্ড একটি প্রেস্টিজিয়াস এ্যাওয়ার্ডে পরিণত হয়েছে। আর এই আয়োজন করে আলমগীর খান আলম যোগ্য ব্যক্তিদের সম্মানীত করে নিজেকেই সম্মানিত করছেন। আমি এর সঙ্গে আছি এবং ভবিষ্যতেও থাকবো।

নিউ ইয়র্কের সেরা শিল্পীদের নাচ আর গানের ফাঁকে ফাঁকে শিল্পী, সাহিত্যিক, সমাজকর্মীদের হাতে এ্যাওয়ার্ড তুলে দেন চিত্রনায়িকা মৌসুমীসহ অন্যান্য অতিথিরা।

নিউইয়র্কের এ প্রজন্মের জনপ্রিয় শিল্পী আলবান, ঋত্বিকা ব্যানার্জি, জারিন মাইসা, সাগ্নিক মজুমদার, শিল্পী নীলিমা শশী, কৃষ্ণা তিথি, কামরুল ইসলাম, মিতু মাহমুদ,  যন্ত্রশিল্পী শরীফ, নৃত্যশিল্পী প্রিয়া ডায়েস, অ্যাটর্নি রুমা জান্নাতুল, বিশিষ্ট রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী নূরুল আজিম, নাসির সবুজ,  রহমান মালিক, তারেক হাসান খান (গ্লোবাল মাল্টি সার্ভিস), ফারহানা খান (নারী উদ্যোক্তা), মাশুদ রানা তপন (সানমুন মানি ট্রান্সফার), এএসএম উদ্দিন (আঙ্কর ট্রাভেলস), আবৃত্তিকার গোপন সাহা, গীতিকার ইশতিয়াক রুপু, উপস্থাপক বাবু জামান, সোনিয়া, সাংবাদিক ইকবাল ফেরদৌস, অভিনেতা তরিকুল ইসলাম মিঠু, পরিচালক ইমন, বিপ্লব, ব্রডকাস্ট জার্নালিস্ট জলি, রেজওয়ানা আলভিস, হোম কেয়ার সার্ভিস মোঃ জামিল, কাজী লিটন, মোঃ খালেক, ডক্টর শাহজাদী পারভীন (মা ফাউন্ডেশন), কমিউনিটি এক্টিভিটি আহসান হাবীব, রাব্বি সাঈদ, হাসান জিলানী, মোঃ কাসেম, সিপিএ চিশতী, মোহাম্মদ সারোয়ার (ফ্রেশ ফুড), প্রিয়দর্শনী মৌসুমির হাতে আজীবন সম্মাননা তুলে দেন বিশিষ্ট রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী নুরুল আজিম।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ডা. সারওয়ারুল হাসান, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী নূরুল আজিম, আব্দুল আলিম, মোঃ সোহাগ, হেলাল মিয়া, আব্দুর রশিদ বাবু, রেদওয়ান হক, ডিউক খান, রহমান মালিক, তানভীর কায়সার, সাদেক শিবলী, কণ্ঠশিল্পী চন্দন চৌধুরী, শামীম সিদ্দিকী, কমিউনিটি এক্টিভিস্ট আহসান হাবীব, রাব্বি সাঈদ, মনিকা রায়, সাংবাদিক মোহাম্মদ সাঈদ, মিজানুর রহমান, আকবর হায়দার কিরণ, কানু দত্ত, রাশেদ আহমেদ, তোফাজ্জল লিটন, সাকায়েত হোসেন সেলিম, ফটো আলোকচিত্রী নিহার সিদ্দিকী, তুষার পিক, বাংলাদেশ আমেরিকান লায়ন্স ক্লাবের সাবেক সভাপতি আহসান হাবিব, মোস্তাকিম, রাবু বিল্লাহ, মাকসুদুল এইচ চৌধুরী, শাকিল মিয়া প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রিয়া ডায়েস ও তার দলের নৃত্য উপস্থিত দর্শকদের মন ছুঁয়ে যায়। অনুষ্ঠানে সঙ্গীত পরিবেশন করেন বিন্দু কনা, কৃষ্ণ তিথি, নীলিমা শশী, মনিকা দাস, মিতু মাহমুদ, আফতাব জনি, আলভিন, সাগ্নিক মজুমদার, রওশন আরা কাজল ও ড. কামরুল হক।