২৯ মে ২০২৪, বুধবার, ০৪:৩৩:২৪ পূর্বাহ্ন


নাটোর হতে গণধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার
নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেট করা হয়েছে : ০৫-০৪-২০২৪
নাটোর হতে গণধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী গ্রেফতার নাটোর হতে গণধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী মোঃ মামুন গ্রেফতার।


নাটোর হতে গণধর্ষণ মামলার পলাতক আসামী মোঃ মামুন (২৫)’কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৫।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) রাত ২টার দিকে নাটোর সদর থানাধীন কানাইখালী শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়াম হতে তাকে গ্রেফতার করা হয়

গ্রেফতার মোঃ মামুন আলী রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী থানাধীন তাজেন্দ্রপুর, (মোল্লাপাড়া) গ্রামের মোঃ বারিক হোসেন এর ছেলে

মামলা সূত্রে জানা যায়, আসামী মোঃ সাদ্দাম হোসেন ভিকটিমের নিকট প্রতিবেশী। ভিকটিম পঞ্চম শ্রেনী পর্যন্ত লেখাপড়া করেছে। গত ১০/০২/২০২৪ বিকাল অনুমান বিকাল সাড়ে ৪টার সময় ভিকটিম গোদাগাড়ী থানাধীন তাজেন্দ্রপুর মোল্লাপাড়া গ্রামে বসতবাড়ীর পূর্ব পার্শ্বে জনৈক মোঃ এজাজুল হক এর ভূট্টার জমিতে ছাগলের জন্য ঘাস কাটতে যায়। একই জমিতে আসামী মোঃ সাদ্দাম হোসেন ঘাস কাটছিল। ঐদিন বিকাল অনুমান বিকাল সাড়ে ৫টার সময় ঘাস কাটার একপর্যায়ে আসামী মোঃ সাদ্দাম হোসেন ভিকটিমকে জোর পূর্বক ঝাপটাইয়া ধরে মুখে গামছা পেঁচিয়ে ভুট্টার জমিতে ভিকটিমের ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। কিছুক্ষন পর আসামী মোঃ মামুন হোসেন ঘটনাস্থলে আসে এবং আসামী মোঃ সাদ্দাম হোসেনকে বলে যে, আমাকে ধর্ষণ করতে না দিলে আমি ঘটনা সম্পর্কে স্থানীয় লোকজনদেরকে বলে দিব। পরবর্তীতে আসামী মোঃ মামুন ও মোঃ সাদ্দাম পরস্পর যোগসাজজে একাধিকবার ভিকটিমকে ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। পরবর্তীতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী মডেল থানায় গণধর্ষণ মামলা দায়ের করে। মামলার রুজুর পর হতে এজাহারনামীয় আসামীদ্বয় আত্নগোপনে চলে যায়।

গ্রেফতার আসামী মোঃ মামুন হোসে কে রাজশাহী জেলার গোদাগাড়ী থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।